আপডেট

x


কুলাউড়ায় ইজারাদার ও বাজার কমিটির মধ্যে সংঘর্ষ! ইজারা বাতিলের দাবী

শনিবার, ২৫ জুলাই ২০২০ | ৯:১৫ অপরাহ্ণ | 622

কুলাউড়ায় ইজারাদার ও বাজার কমিটির মধ্যে সংঘর্ষ! ইজারা বাতিলের দাবী

কুলাউড়া উপজেলার হাজীপুর ইউনিয়নের ‘প্রবাসী ঈদগাহ বাজার’ এর ইজারাদার বোরহান উদ্দিনের দাপট দেখিয়ে হয়রানির অভিযোগ। জানা যায়, স্থানীয় ক্ষুদে ব্যবসায়ীদের সুবিধারতার্থে প্রবাসে অবস্থানরত কয়েকজন প্রবাসীদের আর্থিক সহযোগিতায় ও স্থানীয়দের চেষ্টায় ২০১৯সালে বাজারটি প্রতিষ্টা করা হয়। তবে বাজারের ইজারা এনে স্থানীয় বিএনপির সক্রিয়কর্মী বোরহান উদ্দিন বেশ কিছুদিন ধরে বাজারের ২শতাংশ জায়গা (দোকান ভিটা) দখল করার জন্য ব্যবসায়ীদের হয়রানি করে আসছে। এমন অভিযোগ করেছে স্থানীয় ব্যবসায়ী ও বাজার কমিটির একটি অংশ।

শুক্রবার (২৪ জুলাই) বিকেলে বাজারে একটি সালিশ চলাকালে প্রবাসীদের নিয়ে কটুক্তি করার জের ধরে ব্যবসায়ী ও ইজারাদারের মধ্যে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া ও সংঘর্ষ হয়। এ ঘটনায় উভয় পক্ষের ৬-৭ জন আহত হয়েছেন। তারা প্রতেকে কুলাউড়া হাসপাতালে প্রাথমিক চিকিৎসা নেয়।



সরজমিনে গিয়ে দেখা গেছে, এঘটনায় ওই বাজারের বিভিন্ন ক্ষুদ্র ব্যবসায়ী ও বাজার কমিটির সদস্যদের মধ্যে আতঙ্ক বিরাজ করছে। আতঙ্কিত ব্যবসায়ীরা ওই বোরহান উদ্দিনের ইজারা বাতিলের দাবী জানান।

সংঘর্ষের ঘটনায় ইজারাদার এবং বাজার কমিটির পক্ষ থেকে কুলাউড়া থানায় পাল্টা-পাল্টি অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। ঘটনার পর থেকে মধ্যপ্রাচ্যের বিভিন্ন দেশে এবং ইউরোপ আমেরিকায় অবস্থানরত ওই এলাকার প্রবাসী এবং এলাকাবাসীর মধ্যে ক্ষোভ বিরাজ করছে।

প্রত্যক্ষদর্শী এবং এলাকাবাসী সুত্রে জানা যায়, প্রবাসীদের অর্থায়নে এবং সরকারের ভুমি মন্ত্রণালয়ের অনুমোদন সাপেক্ষে মাদানগর ঈদগাহ সংলগ্ন স্থানে গত বছর থেকে প্রবাসী ঈদগাহ বাজারে হাট চালু হয়। সম্প্রতি বাজারটি ইজারা আনেন মাদানগর গ্রামের বোরহান উদ্দিন । ইজারা এনে ইজারাদার বাজারে তার বিক্রিত জমির অতিরিক্ত ২ শতাংশ ভুমি রয়েছে বলে দাবি করেন। এরপর থেকে ইজারাদার ও বাজার পরিচালনা কমিটির মধ্যে উত্তেজনা চলছে।

শুক্রবার এ বিষয়ে বাজারে একটি সালিশ বৈঠক চলাকালে ইজারাদার ও তার ভাই সাবেক মেম্বার ওয়াতির আলী বাজারের প্রতিষ্ঠাতা প্রবাসীদের গালিগালাজ ও কটুক্তি করেন। এ নিয়ে ইজারাদারের লোকজন এবং এলাকাবাসীর মধ্যে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া এবং সংঘর্ষ হলে ৬-৭ জন আহত হন। আহতদের মধ্য ইজারাদার বোরহান উদ্দিন (৪৫), যুবলীগ নেতা ফয়জুল হক (৪২), প্রবাসী মিজানুর রহমান (২৫) রয়েছেন।

হাজিপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আব্দুল বাছিত বাচ্চু বলেন, বিষয়টি জেনেছি। বিষয়টি উপজেলা চেয়ারম্যান মহোদয়কে অবগত করা হয়েছে। এলাকার বৃহত্তর স্বার্থে উভয় পক্ষকে ধৈর্য ধরে পরিস্থিতি মোকাবেলা করার অনুরোধ করছি। বিষয়টি আপোষ নিষ্পত্তি করা হবে।

কুলাউড়া থানার অফিসার ইনচার্জ ইয়ারদৌস হাসান জানান, উভয় পক্ষের কাছ থেকে অভিযোগ পেয়েছি। বিষয়টি তদন্ত করে শীঘ্রই আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

আর্কাইভ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
১০১১১২১৩১৪
১৫১৬১৭১৮১৯২০২১
২২২৩২৪২৫২৬২৭২৮
২৯৩০৩১  
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক

Development by: webnewsdesign.com