প্রশ্ন প্রধানমন্ত্রীর

সংলাপে এসে আবার আন্দোলন কেন

রবিবার, ০৪ নভেম্বর ২০১৮ | ১০:৪০ পূর্বাহ্ণ | 39

সংলাপে এসে আবার আন্দোলন কেন

জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট আলোচনায় বসার পাশাপাশি আন্দোলন চালিয়ে যাওয়ার ঘোষণা দেওয়ায় সংলাপে তাদের আন্তরিকতা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভানেত্রী শেখ হাসিনা।

তিনি বলেছেন, “আলোচনা চলছে, তখন আবার দেখলাম আন্দোলনের কর্মসূচিও তারা দেয়। একদিকে আলোচনা করবে আবার আরেকদিকে আন্দোলনের কর্মসূচি দেওয়া, এটা কী ধরনের সংলাপ? সেটা আমাদের কাছে বোধগম্য না। জানি না, দেশবাসী জাতি এটা কীভাবে নেবে?”

শনিবার জেল হত্যা দিবসে ঢাকার ফার্মগেইটে কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশন মিলনায়তনে আওয়ামী লীগের আলোচনা অনুষ্ঠানে চলমান সংলাপ নিয়ে একথা বলেন শেখ হাসিনা।

বিএনপির সংলাপের আহ্বান দীর্ঘদিন নাকচ করে আসার পর একাদশ সংসদ নির্বাচনের আগে প্রত্যাশিতভাবে কামাল হোসেনের নেতৃত্বে গঠিত তাদের নতুন জোটকে আলোচনায় ডাকেন শেখ হাসিনা।

তিনি বলেন, “নির্বাচন অবাধ, সুষ্ঠু হোক, আমরা সেটাই চাই। নির্বাচন সামনে রেখে যখন ঐক্যফ্রন্ট চিঠি দিল আমাদের সাথে দেখা করতে, তখন আমি সাথে সাথে স্বাগত জানালাম। অনেক ব্যস্ততার মাঝেও যারাই দেখা করতে চাচ্ছে, আমরা করছি। ঐক্যফ্রন্ট ও যুক্তফ্রন্ট- দুটো গ্রুপের সাথে আমাদের মিটিং হয়ে গেছে। এরপর আরও সকলের সাথে আমরা করব।

“যারা আলাপ করতে চেয়েছে, সংলাপ করতে চেয়েছে, আমরা করেছি। একটা সুন্দর পরিবেশে আলোচনা হয়েছে। তারা যে সমস্ত দাবি-দাওয়া দিয়েছে, যে সব দাবি-দাওয়া আমাদের পক্ষে করা সম্ভব, আমরা বলেছি সেটা করব।”

গত বৃহস্পতিবার গণভবনে সংলাপে প্রত্যাশিত সমাধান না পাওয়ার কথা জানিয়ে ৭ দফা দাবিতে আন্দোলন চালিয়ে যাওয়ার ঘোষণা দিয়েছেন ঐক্যফ্রন্ট ও বিএনপি নেতারা।

বিএনপিসহ ঐক্যফ্রন্ট খালেদা জিয়াকে মুক্তি দিয়ে সংসদ ভেঙে নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে নির্বাচনের দাবি তুললেও সংবিধানের বাইরে গিয়ে কোনো দাবি পূরণ করা হবে না বলে তাদের জানিয়েছে ক্ষমতাসীনরা।

সূত্র: বিডিনিউজ২৪.কম

Development by: webnewsdesign.com